শিবগঞ্জে পানিতে ডুবে এবং গলায় জলপাই আটকে ২ শিশুর মৃত্যু2 মিনিটে পড়ুন

76

শিবগঞ্জ প্রতিনিধি

বগুড়ায় পানিতে ডুবে এবং গলায় জলপাই আটকে দুই শিশুর মৃত্যু হয়েছে। শনিবার দুপুরে শিবগঞ্জে উপজেলার ধামাহার নাটমরিচাই গ্রামে পানিতে ডুবে এবং বৃহস্পতিবার রাতে পনেরটিকা গ্রামে জলপাই আটকে দুই শিশু মৃত্যুর ঘটনা ঘটে।
শিবগঞ্জ থানার পুলিশ পরিদর্শক (অপারেশন) হরিদাস মণ্ডল জানান, শনিবার দুপুরে উপজেলার ধামাহার নাটমরিচাই গ্রামের বাসিন্দা ও জামুরহাট মাদ্রাসা শিক্ষক সোহেল রানার শিশু কন্যা নাজিফা খাতুন (২) বাড়ির পাশে খেলা করার সময় সবার অজান্তে পুকুরে পরে নিখোঁজ হয়। পরে অনেক খোঁজাখুঁজির পর পুকুর থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়।
এদিকে বিহার ইউপি চেয়ারম্যান মহিদুল ইসলাম জানান, গাইবান্ধা জেলার সাঘাটা উপজেলার বাসিন্দা বিজিবি’র সদস্য কনক মিয়া, তার স্ত্রী মাধবী বেগম ও সন্তান তাসিনকে নিয়ে উপজেলার বিহার ইউনিয়নের পনেরটিকা গ্রামে নানা রেজাউল করিমের বাড়িতে বেড়াতে আসেন।
গত বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে তাসিন খেলার সময় সবার অজান্তে জলপাই খেয়ে ফেললে জলপাইটি তার গলায় আটকে যায়। এসময় তার বাবা-মা আত্মীয় স্বজনরা তাসিনের গলায় আটকে যাওয়া জলপাই বের করার চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়। পরে ডাক্তারের কাছে নিয়ে আসার সময় জলপাই বেঁধে শ্বাসনালী বন্ধ হয়ে রক্ত বের হয়ে সে পথিমধ্যেই মারা যায়।