ধুনটে চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্রীর আত্মহত্যা2 মিনিটে পড়ুন

41

ধুনট(বগুড়া) প্রতিনিধি

বগুড়ায় মায়ের বকুনিতে অভিমান করে মীম আকতার (১২) নামের এক স্কুলছাত্রী গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে। নিহত মীম আকতার ধুনট উপজেলার কালেরপাড়া ইউনিয়নের আনারপুর-কচুগাড়ি গ্রামের মোকতাল হোসেনের মেয়ে এবং কালেরপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্রী।

বুধবার (০৪ নভেম্বর) সকালের দিকে ধুনট থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আকবর হোসেন এ তথ্য নিশ্চিত করে বলেন, নিহত মীম আকতারের মৃতদেহ উদ্ধারের পর আইনী প্রক্রিয়া শেষে তার মায়ের নিকট হস্তান্তর করা হয়েছে। তবে এ ঘটনায় পরিবারের পক্ষ থেকে কোন অভিযোগ নেই।

জানা গেছে, হতদরিদ্র পরিবারের মেয়ে মীম আকতার। তার বাবা জীবিকার তাগিদে ঢাকায় অবস্থান করেন। মীম তার মা লাভলী খাতুনের সাথে বাবার বাড়িতে থাকে। সংসারে গৃহস্থলী কাজে মীম মাকে সহযোগিতা করে। মঙ্গলবার সন্ধ্যার দিকে সংসারের কাজ ফেলে রেখে খেলাধূলায় মেতে থাকে। মা তাকে বার বার কাজের কথা বলেও খেলাধূলা থেকে ফেরাতে পারেনি।

তারপর মীম আকতারকে তার মা নলকূপ থেকে পানি আনার কথা বলেন। কিন্ত মায়ের কোন কথাই আমলে নেয়নি মীম। এ কারণে মীমকে তার মা বকাঝকা করে। এতে মায়ের উপর ক্ষুব্ধ হয়ে উঠে মীম। একপর্যায়ে মায়ের অজান্তে নিজ বাড়িতে শয়ন কক্ষের ভেতর গলায় ওড়না লাগিয়ে ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে সে।

বগুড়ার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (শেরপুর-ধুনট সার্কেল) গাজীউর রহমান বলেন, সংবাদ পেয়ে মঙ্গলবার রাতেই ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। মীম আকতারের আত্মহত্যার বিষয়টি নিশ্চিত হওয়ার পর তার মৃতদেহ পারিবারের নিকট হস্তান্তর করা হয়েছে।