তাড়াশে জমি নিয়ে বিরোধ, রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে নারী সহ আহত ৭2 মিনিটে পড়ুন

34

এ এইচ খোকন সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধিঃসিরাজগঞ্জের তাড়াশে জমি নিয়ে তিন সহোদরের বিরোধ কে কেন্দ্র করে এক রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে নারী সহ কমপক্ষে ৭ জন গুরুতর আহত হয়েছেন।
শুক্রবার সকাল ৮ টার দিকে উপজেলার দেশীগ্রাম ইউনিয়নের আড়ংগাইল গ্রামের উত্তর ফসলী মাঠে এ ঘটনা ঘটে।
আহতদের মূমূর্ষ অবস্থায় তাড়াশ হাসপাতাল সহ বিভিন্ন ক্লিনিকে ভর্তি করা হয়েছে।
সংঘর্ষের বিষয়টি তাড়াশ থানার ওসি মোঃ ফজলে আশিক নিশ্চিত করেছেন। তিনি আরো জানিয়েছেন, সকালে রক্তাক্ত অবস্থায় কয়েকজন থানায় আসলে তাদেরকে দ্রুত চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।
স্থানীয় সুত্রে জানা গেছে, আড়ংগাইল গ্রামের মৃত চাঁদ আলীর তিন ছেলে রহিম , রফিকুল , সায়েদ আলীর মায়ের নামে থাকা কিছু ফসলী জমির ভাগ বাটোয়ারা নিয়ে নিজেদের মধ্যে বিরোধে চলে আসছিল।
এরই ধারাবাহিকতায় শুক্রবার সকালে আব্দুর রহিম প্রথমে বিবাদমান ওই জমির পাকা রোপা আমন ধান কাটতে গেলে অপর ভাই সায়েদ আলী বাঁধা দেয়।
এ নিয়ে তাদের মধ্যে বাগ বিতন্ডা হয় । এক পর্যায়ে ওই তিন ভাই ও ভাতিজারা দেশীয় অস্ত্র শস্ত্র নিয়ে নিজেদের মধ্যে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে।
এতে আব্দুর রহিম (৪৫), সায়েদ আলী (৪০), রফিকুল ইসলাম (৩৮) ও সায়েদ আলীর স্ত্রী মনেরা পারভীন (৩৫) সহ অন্তত ৭ জন আহত হয়। আহতদের মূমূর্ষ অবস্থায় তাড়াশ হাসপাতাল সহ বিভিন্ন ক্লিনিকে ভর্তি করা হয়েছে।
এদের মধ্যে আব্দুর রহিমের অবস্থা সংকটাপন্ন হওয়ায় তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য সিরাজগঞ্জ ২৫০ বিশিষ্ট শেখ ফজিলাতুন্নেসা মুজিব জেনারেল হাসাপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন তাড়াশে হাসপাতালে চিকিৎসক আলভী হোসেন ।
এ প্রসঙ্গে তাড়াশ থানার ওসি মোঃ ফজলে আশিক বলেন, আহতদের আগে চিকিৎসার ব্যাবস্থা করা হয়েছে। পরবর্তী দোষীদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যাবস্থা গ্রহণ করা হবে।