শেরপুরে তিন বছরের শিশুকে বলাৎকার : লম্পট কিশোর আটক2 মিনিটে পড়ুন

56

শেরপুর(বগুড়া) প্রতিনিধি

বগুড়ার শেরপুরে তিন বছরের এক শিশু বলাৎকারের শিকার হয়েছে। এ ঘটনায় রনি ওরফে রকি (১৪) নামের কিশোরকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। সে উপজেলার মির্জাপুর ইউনিয়নের আয়রা দক্ষিণপাড়া গ্রামের মো. বাটুল মিয়ার ছেলে। বৃহস্পতিবার (১২নভেম্বর) রাতে পুলিশ অভিযান চালিয়ে নিজ বাড়ি থেকে তাকে গ্রেফতার করে। এরআগে ভুক্তভোগী ওই শিশুর মা একই গ্রামের মোছা. বেবি খাতুন বাদি হয়ে পুলিশি অভিযানে গ্রেফতার হওয়া লম্পট রকি ওরফে রনির বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে থানায় মামলা দায়ের করেন।

শেরপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) এসএম আবুল কালাম আজাদ এই তথ্য নিশ্চিত করে জানান, আয়রা দক্ষিণপাড়া গ্রামের দিনমজুর আলমগীর হোসেনের তিনবছর বয়সী শিশুকে গত ১০নভেম্বর বিকেলে স্থানীয় বাজারের হোটেল থেকে সদাই কিনে দেয়ার লোভ দেখিয়ে প্রতিবেশি রনি ওরফে রকি তার বসতবাড়িতে নিয়ে যায়। একপর্যায়ে তার শয়নকক্ষে নিয়ে শিশুটিকে বলাৎকার করে। এসময় শিশুটির চিৎকার শোনে তাঁর মা বসতবাড়ির ওই শয়নকক্ষে গেলে ওই কিশোর পালিয়ে যায়। পরে রক্তমাখা জামা-কাপড় ও অসুস্থ অবস্থায় তার ছেলেকে উদ্ধার করে স্থানীয় চিকিৎসা কেন্দ্রে নিয়ে যান। সেখানে শিশুটিকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়। পরবর্তীতে তিনি বাদি হয়ে ওই কিশোরের বিরুদ্ধে থানায় মামলা দেন। এরপর অভিযান চালিয়ে মামলায় অভিযুক্তকে গ্রেফতার করা হয়। তাকে শুক্রবার দুপুরের পর আদালতে পাঠানো হয়েছে বলে জানান এই পুলিশ কর্মকর্তা।