জামালপুরে মোটরসাইকেল থেকে পড়ে মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তার মৃত্যু2 মিনিটে পড়ুন

47

বগুড়া এক্সপ্রেস ডেস্ক

মোটরসাইকেল থেকে পড়ে জামালপুর সদর উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা আফরোজা বেগমের (৫৩) মৃত্যু হয়েছে।
বুধবার (২৫ নভেম্বর) বিকেলে ময়মনসিংহ-জামালপুর সড়কের শরিফপুর বগালি এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। পরে সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে জামালপুর সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি।

মাধ্যমিক শিক্ষা অফিস সূত্রে জানা যায়, শিক্ষা কর্মকর্তা আফরোজা বেগম আজ দুপুরে সদরের নান্দিনায় একটি বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা নিতে যান। কাজ শেষে বিকেলে তার কার্যালয়ের একাডেমিক সুপারভাইজার হায়দার আলীর মোটরসাইকেলের পেছনে বসে অফিসে ফিরছিলেন। পথে বিকাল ৪টার দিকে ময়মনসিংহ-জামালপুর সড়কের শরিফপুর বগালি এলাকায় চলন্ত মোটরসাইকেল থেকে আকস্মিক পড়ে যান আফরোজা বেগম। এতে তিনি মাথায় গুরুতর আঘাত পান। স্থানীয়রা তাকে সেখান থেকে উদ্ধার করে দ্রুত জামালপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করান। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে তিনি মারা যান।

মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা আফরোজা বেগম ২০১৫ সালে জামালপুর সদর উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসে যোগদান করেছিলেন। নিহত আফরোজা বেগমের বাড়ি গাজীপুর জেলার কাপাসিয়া এলাকায়।

জামালপুর সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফরিদা ইয়াসমিন জানান, দাফতরিক কাজে আফরোজা বেগম সদরের নান্দিনায় গিয়ে ছিলেন। কাজ শেষে জামালপুরে ফেরার পথে সড়ক দুর্ঘটনায় তার মৃত্যু হয়েছে। কর্মজীবনে তিনি খুব কর্তব্যপরায়ণ ছিলেন। তিনি সব সময় গরীব, দুঃখী ও অসহায় মানুষের পাশে থেকে তাদের সহযোগিতা করার চেষ্টা করতেন।

জামালপুর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রেজাউল করিম খান জানান, সদর উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা সড়ক দুর্ঘনায় মারা গেছে খবর পেয়ে জেনারেল হাসপাতালে যায়। হাসপাতালে গিয়ে জানতে পারি, তিনি মোটরসাইকেলে করে নান্দিনা থেকে ফেরার পথে পিছন থেকে পড়ে গিয়ে মারা যান। তবে মরদেহের

ময়নাতদন্তের প্রতিবেদনের পরে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।।