বগুড়ার শেরপুরে গৃহবধূকে ধর্ষণ চেষ্টা: গণধোলাই দিয়ে যুবককে পুলিশে সোপর্দ2 মিনিটে পড়ুন

28

শেরপুর(বগুড়া) প্রতিনিধি

বগুড়ার শেরপুরে গৃহবধূকে ধর্ষণ চেষ্টার ঘটনায় ফিরোজ হোসেন (২৮) নামের এক ব্যক্তিকে গণধোলাই দিয়ে পুলিশে দিয়েছে স্থানীয় জনতা। এ ঘটনায় বুধবার (০২ডিসেম্বর) রাতে ভুক্তভোগী ওই গৃহবধূ বাদি হয়ে থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। আটক হওয়া ব্যক্তি উপজেলার গাড়ীদহ ইউনিয়নের রামনগর পশ্চিমপাড়া গ্রামের ফারাজত আলীর ছেলে।

মামলা সূত্রে জানা যায়, বিগত বারো বছর আগে বিয়ে হওয়া গৃহবধুুর স্বামী যানবাহনের চাকা মেরামতের কাজ করেন। তাই প্রতিদিনের ন্যায় গত মঙ্গলবার (১ডিসেম্বর) কর্মস্থল শেরপুর শহরে চলে যান। কিন্তু কাজের ব্যস্ততার কারণে ওইদিনগত রাতে আর বাড়ি ফিরেননি। আর এই সুযোগে লম্পট ফিরোজ আলী ওই গৃহবধূর ঘরে ঢুকে জোরপূর্বক ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। এসময় ওই গৃহবধূর চিৎকারে আশপাশের লোকজন এসে ফিরোজকে হাতেনাতে আটক করে। এসময় উত্তেজিত জনতা ওই ব্যক্তিকে গণধোলাই দেয়। এরপর  তাকে বেঁধে রাখা হয়। একইসঙ্গে থানায় সংবাদ দিলে পরে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ফিরোজকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যাওয়া হয়।

এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে শেরপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) এসএম আবুল কালাম আজাদ বলেন, এ ঘটনায় থানায় একটি মামলা নেয়া হয়েছে। এছাড়া আটক ব্যক্তিকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।