বগুড়ায় আরো ৮৫৭ পরিবার পাচ্ছে প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া নতুন ঘর3 মিনিটে পড়ুন

123

অনলাইন ডেস্ক

বগুড়ায় দ্বিতীয় পর্যায়ে আরো ৮৫৭টি পরিবার প্রধানমন্ত্রীর উপহারের ঘর পেতে যাচ্ছে। এ নিয়ে জেলায় মোট দুই হাজার ৩০৪টি ভূমি ও গৃহহীন পরিবারের আশ্রয়ের স্থল নিশ্চিত করা হয়েছে।

শুক্রবার (১৮ জুন) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে বগুড়া জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে জেলা প্রশাসক মো. জিয়াউল হক বিষয়টি জানান।

সংবাদ সম্মেলনে জেলা প্রশাসক মো. জিয়াউল হক জানান, দেশে দ্বিতীয় পর্যায়ে ৫৩ হাজার ৩৪০ জন ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে জমিসহ গৃহ নির্মাণ করে দেওয়া হচ্ছে। বগুড়া জেলা থেকে মোট আট হাজার ৬৭১টি ক-শ্রেণিভূক্ত (ভূমি ও গৃহহীন) পরিবারের তালিকা পাঠানো হয়েছিল। তালিকার আওতায় প্রথম পর্যায়ে এক হাজার ৪৫২টি পরিবারের মধ্যে ঘর দেওয়া হয়। এবার নির্মাণ করা হয়েছে ৮৫৭টি ঘর। প্রতিটি ঘর নির্মাণে ব্যয় করা হয়েছে এক লাখ ৯০ হাজার টাকা। আগামী রোববার (২০ জুন) এই গৃহ হস্তান্তর কার্যক্রমের উদ্বোধন করা হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সারাদেশে একযোগে ভিডিও কনফারেন্সে গৃহগুলো হস্তান্তর করবেন।

এর মধ্যে বগুড়া সদর উপজেলায় ২২৩টি ঘর নির্মাণ করা হয়। ধুনটে ১২০টি, দুপচাঁচিয়ায় ১৫০টি, গাবতলীতে ২৫টি, কাহালুতে ৩০টি, নন্দীগ্রামে ৮০টি, সারিয়াকান্দিতে ৫১টি, শাজাহানপুরে ১৩টি, শেরপুরে ১৭টি, শিবগঞ্জে ৭৩টি, সোনাতলায় ৫০টি ও আদমদীঘিতে ২৫টি।

বগুড়ায় উদ্বোধনী অনুষ্ঠান ১২টি উপজেলায় অনুষ্ঠিত হবে। এই অনুষ্ঠানগুলোয় স্থানীয় সাংসদ, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও উপকারভোগীরা উপস্থিত থাকবেন। এর মধ্যে জেলা প্রশাসক ধুনট উপজেলায় উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করবেন।

এ সময় নির্মাণ কাজের মান নিয়ে গণমাধ্যমকর্মীদের এক প্রশ্নে জেলা প্রশাসক জিয়াউল হক বলেন, গৃহ নির্মাণ কাজের ত্রুটি থাকতে পারে। এমন হলে আপনারা জানাবেন বা অভিযোগ দিলে আমরা বিষয়টি দেখবো।

পরে অনুষ্ঠান শেষে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে বগুড়ায় করোনা আক্রান্ত ৪১ জন ক্ষতিগ্রস্তদের প্রত্যেকের হাতে ১০ হাজার টাকার আর্থিক সহায়তার চেক তুলে দেন জেলা প্রশাসক জিয়াউল হক।

অনুষ্ঠানে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক(সার্বিক) জনাব মাসুম আলী বেগ, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) জনাব উজ্জ্বল কুমার ঘোষ, বগুড়া প্রেসক্লাবের সভাপতি জনাব মাহমুদুল আলম নয়ন, সাধারণ সম্পাদক জনাব আরিফ রেহমান, সাবেক সভাপতি ও দৈনিক করতোয়ার বার্তা সম্পাদক জনাব প্রদীপ ভট্টাচার্য শংকরসহ জেলায় কর্মরত গণমাধ্যমকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।