দুপচাঁচিয়ার তালোড়ায় পূর্বশত্রুতার জের ধরে মারপিট,থানায় অভিযোগ2 মিনিটে পড়ুন

83

দুপচাঁচিয়া(বগুড়া) প্রতিনিধিঃ
দুপচাঁচিয়া উপজেলার তালোড়ায় পূর্বশত্রæতার জের ধরে রফিকুল ইসলাম হেলাল নামের এক ব্যক্তিকে গতকাল মঙ্গলবার প্রতিপক্ষরা মারপিট সহ নগদ টাকা ও মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নিয়েছে। এ ঘটনায় হেলালের ছোট ভাই শফিকুল ইসলাম আজাদ বাদী হয়ে ওইদিন দুপচাঁচিয়া থানায় ৫জনের নাম উল্লেখ সহ অজ্ঞাত ১০/১৫ জনের নামে অভিযোগ করেছেন।
থানার অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, গত সোমবার উপজেলার তালোড়া ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দোগাছী গ্রামের বাসিন্দা সাদিকুল ইসলাম মজনু ৯নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য নির্বাচিত হন। নির্বাচনে মজনুর ছোট ভাই আজাদ ও হেলাল ওয়ার্ডের বিভিন্ন গ্রামে নির্বাচনী প্রচারনা চালান। নির্বাচনী প্রচারনাকালীন সময়ে বিভিন্ন জায়গায় চা-বিড়ি-সিগারেটের বাঁকী টাকা পরিশোধের জন্য গতকাল মঙ্গলবার সকাল আনুমানিক ৯টার দিকে রফিকুল ইসলাম হেলাল মোটরসাইকেল যোগে বাড়ি থেকে রওনা হয়। পথে দোগাছী কমিউনিটি সেন্টারের অদূরে পৌঁছিলে পোড়াঘাটা গ্রামের খোশবর আলীর ছেলে জাহাঙ্গীর হোসেন(৩৭) পূর্বশত্রæতার জের ধরে হেলালকে লাঠি দিয়ে মাথায় আঘাত করে। এসময় হেলাল মাথা সরিয়ে নিলে লাঠির আঘাত মোটরসাইকেলে লেগে মোটরসাইকেলের ক্ষতি হয়। পরে একই গ্রামের আব্দুল বারীর ছেলে মেহেরুল ইসলাম(২৬) ও জাকিরুল ইসলাম(২২) হেলালকে চড়-থাপ্পর-কিল-ঘুষি মেরে তার পকেটে থাকা ৯হাজার ৫’শ টাকা ও একটি মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নেয়। এসময় হেলালের চিৎকারে তার ভাই সহ অন্যান্যরা ঘটনাস্থলে উপস্থিত হলে প্রতিপক্ষরা হেলালকে প্রাণে মেরে ফেলার হুমকি দিয়ে ঘটনাস্থল ত্যাগ করে।
দুপচাঁচিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ হাসান আলী অভিযোগ প্রাপ্তির বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, তদন্ত করে ঘটনার সত্যতা পেলে দোষীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।