বগুড়ায় যুবলীগ কর্মী শাকিল হত্যার প্রধান আসামিসহ গ্রেফতার ৩2 মিনিটে পড়ুন

33

 

বগুড়া শহর যুবলীগ কর্মী শাকিল হত্যা মামলার প্রধান আসামিসহ তিনজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন- মামলার প্রধান আসামি বগুড়া শহরের আকাশতারা এলাকার মোহাম্মদ আলীর ছেলে সুলতান (৪৮), তার স্ত্রী মলি বেগম (৪০) ও ছেলে শাওন (২৬)।

সোমবার (১২ অক্টোবর) দুপুরে এসব তথ্য জানিয়েছেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা পুলিশ পরিদর্শক রেজাউল করিম রেজা।

জানা গেছে, গত ১২ জুন সকাল ১০টার দিকে শহরের আকাশতারা এলাকায় নারুলী তালপট্টি এলাকার শফিকুল ইসলামের ছেলে যুবলীগ কর্মী শাকিলকে (৩২) কুপিয়ে হত্যা করা হয়। এলাকায় বালুর ব্যবসা ও আধিপত্য নিয়ন্ত্রণ নিয়ে ওই দিন শাকিল ও তার সহযোগীরা সুলতানের ছেলে শাওনকে খুন করতে যায়। এ সময় শাওনের বাবা-মা ও তার সহযোগীরা শাকিলের রামদা কেড়ে নিয়ে তাকেই কুপিয়ে হত্যা করে। এ ঘটনায় নিহত শাকিলের বাবা শফিকুল ইসলাম বাদী হয়ে সুলতান, তার স্ত্রী ও ছেলেসহ ৯ জনের নামে বগুড়া সদর থানায় মামলা করেন। ওই মামলায় পুলিশ ইতোপূর্বে চিনি আল আমিন ও রাফী নামে দুইজনকে গ্রেফতার করে।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা বগুড়া সদর থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) রেজাউল করিম রেজা জানান, হত্যাকাণ্ডের পর থেকেই মামলার প্রধান আসামি সুলতান তার স্ত্রী ও ছেলেসহ লালমনিরহাট জেলার হাতিবান্দায় পালিয়ে ছিলেন। কয়েকদিন আগে তারা বগুড়া শহরের বৃন্দাবন পাড়ায় বাড়ি ভাড়া নিয়ে বসবাস শুরু করেন। সেই সংবাদ পেয়ে রোববার রাতে তাদেরকে গ্রেফতার করা হয়। সোমবার গ্রেফতারকৃতদেরকে আদালতে হাজির করে ৫ দিনের রিমান্ড আবেদন করা হয়েছে।