নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রীর বিয়ে, দিনক্ষণ চূড়ান্ত হওয়ার অপেক্ষা2 মিনিটে পড়ুন

29

বগুড়া এক্সপ্রেস ডেস্ক

বছর খানেক আগেই এনগেজমেন্ট হয়ে গেছে। তারপর বিয়ের কথা থাকলেও নানা কারণে, বারবার তা পিছিয়ে গিয়েছে। ফের একবার নিজের বিয়ের পরিকল্পনার কথা জানালেন নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জেসিন্ডা আর্ডেন। তবে বিয়ের দিনক্ষণ এখনো চূড়ান্ত হয়নি।

৪০ বছরের জেসিন্ডা আর্ডেনের দীর্ঘদিনের সঙ্গী ৪৪ বছরের টেলিভিশন উপস্থাপক ক্লার্ক গেফোর্ড। ২০১২ সালে একটি অ্যাওয়ার্ড অনুষ্ঠানে তাদের প্রথম দেখা হয়। তাদের ২ বছরের একটি মেয়েও রয়েছে। তার নাম নেভ তে আরোহা। এর আগে জেসিন্ডা বলেছিলেন, দেশের সাধারণ নির্বাচনের আগে বিয়ের করতে চান না তারা। কিন্তু করোনা, লকডাউনের কারণে তা আর হয়ে ওঠেনি। দেশ সামলাতে গিয়ে ব্যক্তিগত জীবনই পিছনের সারিতে চলে গিয়েছিল। গত মাসেই সাধারণ নির্বাচনে তার দল লেবার পার্টিকে বিপুল ভোটে জিতিয়ে আনেন জেসিন্ডা। ভোটের জিতে দ্বিতীয়বারের জন্য প্রধানমন্ত্রীর কুর্সিতে বসেন। সম্প্রতি ক্লার্কের সঙ্গে বিয়ের পরিকল্পনা করছেন বলে জানিয়েছেন জেসিন্ডা। তবে বিয়ের দিনক্ষণ কিছু জানাননি তিনি।

বুধবার নিউজিল্যান্ডের নিউ প্লেমাউথ শহরে বিয়ে নিয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে জেসিন্ডা বলেন, ‘আমি আপনাদের এটা বলতে পারি যে, আমাদের কিছু পরিকল্পনা আছে। সবাইকে জানানোর আগে আমাদের পরিবার ও বন্ধুদের বিয়ের পরিকল্পনার কথা জানাতে হতে পারে।’ গত বছর জেসিন্ডার সঙ্গে এনগেজমেন্ট হয় ক্লার্ক গেফোর্ডের। জেসিন্ডাকে অবাক করে দিতে অভিনব বিয়ের প্রস্তাব দেন তিনি। পাহাড় চূড়ায় উঠে ক্লার্ক তাকে বিয়ের প্রস্তাব দেন।

সন্তান জন্মের পর জেসিন্ডা বলেছিলেন, ‘আমি এমন একজন সঙ্গী পেয়েছি যে সবসময় পাশে থাকবে। সন্তানকে বড় করতে মা-বাবার যে দায়িত্ব, তার বড় অংশই সে কাঁধে তুলে নিয়েছে।’ সেই সঙ্গী ক্লার্কের সঙ্গেই এবার বিবাব বন্ধনে আবদ্ধ হতে চলেছেন নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জেসিন্ডা আর্ডেন।

সূত্র : এই সময়